নতুন যাত্রা শুরু সাকিবের

খেলা
Typography
  • Smaller Small Medium Big Bigger
  • Default Helvetica Segoe Georgia Times

নতুন যাত্রা শুরু সাকিবের


প্রথম দিকে সবকিছু একটু অচেনাই লেগেছিল সাকিব আল হাসানের। নতুন পরিবেশ, নতুন সতীর্থ, নতুন ড্রেসিংরুম...। বাংলাদেশের বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারের কাছে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ যেন নতুন এক ‘বসতভিটা’!
ভারতের জনপ্রিয় ঘরোয়া ক্রিকেট লিগ আইপিএল। কুড়ি ওভারের ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক এই লিগ গোটা ক্রিকেটবিশ্বে ছড়িয়ে-ছিটিয়ে থাকা ক্রিকেটপ্রেমীদেরও হৃদয় জয় করে নিয়েছে। তবে উন্মাদনায় ভারতের পরই রাখতে হচ্ছে বাংলাদেশের ফ্যানদের।
দুই ক্রিকেটারকে ঘিরেই এই উন্মাদনা। দুজনের একজন সাকিব আল হাসান। এর আগে কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে মাঠ কাঁপিয়েছেন বাংলাদেশের বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। এবার সাকিবের নতুন ঠিকানা হয়েছে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ।
বলে রাখা ভালো, আইপিএলে সুযোগ পাওয়া আরেক ক্রিকেটার হলেন মোস্তাফিজুর রহমান। গত দুই আসরে কাটার মাস্টার খেলেছেন সানরাইজার্স হায়দরাবাদের হয়ে। প্রথম আসরে হায়দরাবাদের শিরোপা জয়ে বল হাতে বড় ভূমিকা রেখেছিলেন বাঁ-হাতি পেসার। তবে দ্বিতীয় আসরটা তার ভালো যায়নি। অধিকাংশ ম্যাচে মোস্তাফিজকে বেঞ্চে বসে থাকতে হয়েছে। এবার বাংলাদেশের উদীয়মান এই তারকা ক্রিকেটারকে ২.২ কোটিতে দলে ভিড়িয়েছে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স।
কলকাতা নাইট রাইডার্স সাকিব আল হাসানের কাছে ‘নিজের ঘর’ হয়ে উঠেছিল। তবে এবার আর তাকে ধরে রাখেনি কলকাতা। প্রথমবারের মতো হায়দরাবাদের হয়ে খেলবেন সাকিব। সে কারণেই প্রথম দিকে একটু ‘নার্ভাস’ ছিলেন তিনি। তবে সময় গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডার এখন দলের সঙ্গে নিজেকে মানিয়ে নিয়েছেন।
সাকিবের জন্য এবারের আইপিএল কিছুটা চ্যালেঞ্জিংও বটে। যতটুকু আভাস পাওয়া যাচ্ছে, তাতে হায়দরাবাদের অধিকাংশ ম্যাচেই একাদশে রাখা হবে তাকে। সাকিবের জন্য বড় চ্যালেঞ্জ হবে নিয়মিত পারফরম্যান্স করা। কিছু ক্রিকেটবোদ্ধা বলছেন, এ আসরে পারফরম্যান্স করতে না পারলে সামনের বছর হয়তো সাকিবের প্রতি আগ্রহ না-ও দেখাতে পারে আর কোনো ফ্র্যাঞ্চাইজি। অর্থাৎ এটাই হতে পারে তার শেষ আইপিএল! তবে অভিজ্ঞ এই ক্রিকেটারের নিবিড় প্রস্তুতিই বলে দিচ্ছে, ২২ গজের ময়দানে ব্যাটে-বলে ঝড় তুলতে তিনিও প্রস্তুত।
১৫ জানুয়ারি ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে ফিল্ডিং করার সময় আঙুলে চোট পান সাকিব। এ কারণে শ্রীলংকার বিরুদ্ধে দেশের মাটিতে অনুষ্ঠিত দ্বিপক্ষীয় সিরিজের টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি ম্যাচে তিনি খেলেননি। এমনকি মার্চে শ্রীলংকায় অনুষ্ঠিত নিদাহাস ট্রফির প্রথম তিন ম্যাচেও খেলা হয়নি সাকিবের। তবে দলের স্বার্থে ফাইনাল ও এর আগে শ্রীলংকার বিরুদ্ধে অলিখিত সেমিফাইনালে রূপ নেওয়া ম্যাচে খেলেছেন সাকিব। যদিও ফাইনালে ভারতের কাছে হেরে স্বপ্নভঙ্গের বেদনা নিয়েই মাঠ ছাড়তে হয় সাকিব বাহিনীকে।
ভারতে গিয়েই দলের সঙ্গে যোগ দেন সাকিব। এর পর নিয়মিত অনুশীলন করছেন। নেটে কঠোর অনুশীলন করে নিজেকে প্রস্তুত করছেন এই অলরাউন্ডার। একাদশে সুযোগ পেলে নিজের সেরাটা দেওয়ারই চেষ্টা করবেন তিনি। সাকিব বলেছেন, ‘আমি মনে করি হায়দরাবাদের চ্যাম্পিয়ন হওয়ার সামর্থ্য আছে।’ কলকাতার সঙ্গে সাত বছরের সম্পর্ক ছিন্ন হওয়ার পর সানরাইজার্স হায়দরাবাদের হয়ে নতুন যাত্রা শুরু হচ্ছে সাকিব আল হাসানের। আইপিএলে আগামীকাল মাঠে নামবে তার দল। রাজস্থান রয়ল্যাসের বিপক্ষে ম্যাচটি শুরু হবে রাত সাড়ে আটটায়। দর্শকদের উদ্দেশে সাকিব বলেছেন, ‘আশা করছি আপনারা (দর্শক) আমাদের দলকে সমর্থন করে যাবেন।’