টানা জয়ে শীর্ষে কলকাতা

খেলা
Typography
  • Smaller Small Medium Big Bigger
  • Default Helvetica Segoe Georgia Times

টানা জয়ে শীর্ষে কলকাতা


ঘরের মাঠে ৯ ম্যাচ অপরাজিত রাজস্থান রয়্যালসকে ৭ উইকেটে হারিয়ে ম্যাচ জিতল কলকাতা নাইট রাইডার্স (কেকেআর)। ১৬০ রান তাড়া করতে নেমে ১.১ ওভার বাকী থাকতেই লক্ষ্যপূরণ করে ফেললেন নাইট ব্যাটসম্যানরা।
প্রথমে বল হাতে প্রতাপ দেখানোর পরে ব্যাট হাতে মাথা ঠাণ্ডা রেখে ম্যাচ বের করে এনেছেন কেকেআরের ব্যাটসম্যানরা। ম্যাচের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত কখনও মনে হয়নি রাজস্থান ম্যাচ জিততে পারে। দীনেশ কার্তিকের দলের দাপটে ।এদিন পাত্তাই পায়নি অজিঙ্কা রাহাসের দল।
আইপিএলের এবারের আসরের ১৫তম ম্যাচে কলকাতার হয়ে ওপেন করতে নামেন সুনীল নারিন ও ক্রিস লিন। ওভারের তৃতীয় বলে বোল্ড হয়ে ফিরে যান লিন। এরপর দ্বিতীয় উইকেটে রবিন উথাপ্পাকে সঙ্গে নিয়ে নারিন ইনিংস টানেন। জুটিতে ওঠে ৬৯ রান। নারিন ৩৫ রানে ফিরে যাওয়ার পরে উথাপ্পা জুটি বাঁধেন নিতীশ রানার সঙ্গে।
অনবদ্য ব্যাট করছিলেন উথাপ্পা। তবে ৪৮ রান করে কৃষ্ণাপ্পা গৌতমের বলে ডিপ লং অনে ক্যাচ আউট হন। বাউন্ডারি লাইনে চমৎকার ক্যাচ নেন বেন স্টোকস। যদিও তারপরেও চাপে পড়েনি বলিউড তারকা শাহরুখ খানের দলটি। সেখান থেকে ইনিংস ধরে নেয় কার্তিক ও রানা জুটি।
শেষ অবধি এই জুটিই কলকাতাকে জয় এনে দেয়। ৭ বল বাকী থাকতেই কলকাতা ৭ উইকেটে ম্যাচ জেতে। অধিনায়ক কার্তিক ২৩ বলে ৪২ রানে ও নীতীশ রানা ২৭ বলে ৩৫ রানে অপরাজিত থাকেন। এই জয়ে পাঁচ ম্যাচে ৬ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপ শীর্ষে চলে গেলো কেকেআর।
এদিন বল হাতে শুরুতেই আক্রমণে আসেন কেকেআর এর স্পিন বোলাররা। পীযূষ চাওলা, কুলদীপ যাদব, সুনীল নারিনরা রাজস্থান ব্যাটসম্যানদের আক্রমণ করেন।
ম্যাচে চাওলা ও কুলদীপ ফের বল হাতে অসাধারণ হয়ে উঠলেও নারিন নিজের সেরাটা দিতে পারেননি। চাওলা ৪ ওভারে ১৮ রানে ১ উইকেট নেন। কুলদীপ ২৩ রানে ১ উইকেট নেন।
সেখানে নারিন একাই ৪ ওভারে ৪৮ রান দেন। তবে নারিনের ওভার ঢেকে দেন পার্ট টাইম স্পিনার নীতীশ রানা। ২ ওভার হাত ঘুরিয়ে ১১ রানে ২ উইকেট নেন। এছাড়া টম কারান ১৯ রানে ২টি উইকেট নিয়েছেন।
রাজস্থানের হয়ে রাহানে ৩৬, ডি শর্ট ৪৪ ও শেষদিকে জস বাটলার ২৪ রান করেন। সবমিলিয়ে ৮ উইকেটে রাজস্থান ১৬০ রানে ইনিংস শেষ করে। যে রান কলকাতা নিশ্চিন্তে তাড়া করে ৭ উইকেটে জয় ছিনিয়ে নিলো।