রোগ সারেনি টাইগারদের

খেলা
Typography
  • Smaller Small Medium Big Bigger
  • Default Helvetica Segoe Georgia Times

রোগ সারেনি টাইগারদের


মাঠে নামার আগে ওপেনার তামিম ইকবাল বলেছিলেন, ‘ক্রিজে ব্যাট হাতে আতংকিত হয়ে পড়ার ঝোঁক আছে আমাদের। এটা থামাতে হবে।’ তবে গতকাল তামিম উইকেট খোয়ান অতি আক্রমণাত্মক ব্যাটিং দেখিয়ে। আর যথারীতি অল্পতেই থামে বাংলাদেশের ইনিংস। ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি আসর নিদাহাস ট্রফিতে গতকাল ১৩৯/৮ সংগ্রহ নিয়ে ইনিংস শেষ করে বাংলাদেশ। আর বাজে শটে উইকেট খোয়ান প্রত্যেকেই। ব্যাটিংক্রমের শীর্ষ চার খেলোয়াড় পার করেন ব্যক্তিগত দুই অঙ্কের রানের কোঠা।
তবে বড় ইনিংস খেলতে পারেননি কেউই। ৩০ বলে ৩৪ রান করেন লিটন কুমার দাস। শেষ পর্যন্ত ক্রিজে থাকতে পারেননি সাব্বির রহমানও। ছয় নম্বরে ব্যাট হাতে ব্যক্তিগত ৩০ রানে উইকেট খোয়ান সাব্বির। ২৫ বলের ইনিংসে সাব্বির হাঁকান তিনটি চার ও একটি ছক্কা। গতকাল কলম্বোর রণসিংহ প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে টস জিতে বাংলাদেশকে ব্যাটিংয়ে পাঠান ভারত অধিনায়ক রোহিত শর্মা। আর ২০ রানে ভাঙে বাংলাদেশের ওপেনিং জুটি। ১১ বলে ১৪ রান করে সাজঘরে  ফেরেন সৌম্য সরকার। ভারতীয় পেসার জয়দেব উনাড়কাটের ডেলিভারিতে শর্ট ফাইন লেগে যুজবেন্দ্র চাহালের হাতে ক্যাচ দেন এ টাইগার ওপেনার। ভারতীয় পেসার শারদুল ঠাকুরের ওভারের তৃতীয় বলে রিভিউ নিয়ে এলবিডব্লিউ থেকে বেঁচে যান তামিম ইকবাল। পরের টানা দুই বলে চার হাঁকান তামিম। ওভারের শেষ বলেও বড় শট হাঁকাতে গিয়ে ক্যাচ দেন তিনি। ১৬ বলে ১৫ রান করেন দেশসেরা এ ওপেনার। দারুণ শুরু করে পরে উইকেট খোয়ান মুশফিকুর রহীমও। ব্যক্তিগত ১৮ রানে ভারতীয় পেসার বিজয় শঙ্করের ডেলিভারিতে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দেন মুশফিক। প্রথমে আম্পায়ার সাড়া না দিলেও রিভিউয়ে সাফল্য পায় ভারত। ১৪ বলের ইনিংসে মুশফিক হাঁকান দুটি চার ও একটি ছক্কা। বাজে শটে উইকেট খোয়ান অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। ব্যক্তিগত ১ রানে অফস্টাম্পের বাইরে ভারতীয় পেসার বিজয় শঙ্করের  ডেলিভারি বাতাসে তুলে দেন মাহমুদুল্লাহ। বল জমা পড়ে শারদুল ঠাকুরের হাতে। মাহমুদুল্লাহ খরচ করেন ৮ বল। লিটন ও মেহেদী হাসান মিরাজের বিদায়ে ১৬.৪তম ওভার শেষে বাংলাদেশের সংগ্রহ দাঁড়ায় ১১৮/৬-এ। তবে ব্যাট হাতে অন্তত দলীয় ১৫০’র সম্ভাবনা দেখাচ্ছিলেন সাব্বির। তবে দুর্বল লেজ নিয়ে বাংলাদেশের ইনিংস থামে ১৪০ পূর্ণ হওয়ার আগেই। মিরাজ ৩, তাসকিন ৮, রুবেল ০ ও মোস্তাফিজ করেন ১ রান। প্রথম ম্যাচে শ্রীলঙ্কার কাছে পাঁচ উইকেট হার দেখে ভারত।