নিউজফিড বদলের ঘোষণায় ২৯০ কোটি ডলার গচ্চা জুকারবার্গের

সোশ্যাল মিডিয়া
Typography
  • Smaller Small Medium Big Bigger
  • Default Helvetica Segoe Georgia Times

ফেসবুকের নিউজফিডে পরিবর্তন এনে সেখানে ব্যক্তির ঘনিষ্ঠজনদের তৎপরতা অগ্রাধিকার দেওয়ার ঘোষণায় ২.৯ বিলিয়ন বা ২৯০ কোটি ডলার গচ্চা গেলো সোশ্যাল নেটওয়ার্কটির প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী মার্ক জুকারবার্গের। পুঁজিবাজারে প্রতিষ্ঠানটির আকস্মিক দরপতনে এ ক্ষতির শিকার হলেন প্রযুক্তিবিদ ধনকুবের।

শুক্রবার (১২ জানুয়ারি) একটি ফেসবুক পোস্টে জুকারবার্গ ঘোষণা করেন, ব্যবহারকারীর নিউজফিডে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, সংবাদমাধ্যম বা তারকা ব্যক্তিত্বের স্পন্সরড পোস্টের বদলে এখন থেকে নিকটজনের তৎপরতাকে বেশি গুরুত্ব দেওয়া হবে। এ ঘোষণার প্রতিক্রিয়ায় ওই দিনই নিউইয়র্কের কেন্দ্রীয় পুঁজিবাজারে ফেসবুকের শেয়ার প্রতি ৩ দশমিক ৯ শতাংশ দরপতন ঘটে।

 

বিশ্বের ধনী ব্যক্তিত্বদের সম্পদ বিবেচনায় দৈনিক র‌্যাংকিং নির্ধারণের ওয়েবসাইট ব্লুমবার্গ ইনডেক্সের রিপোর্ট মতে, কর্মদিবস শেষে জুকারবার্গের মোট সম্পত্তির পরিমাণ ২ দশমিক ৯ বিলিয়ন ডলার কমে যায়। চলতি অর্থবছরে অর্জিত ৪ দশমিক ৫ বিলিয়ন ডলার থেকে বেশিরভাগই লোকসান হওয়ায় ৩৩ বছর বয়সী এ প্রযুক্তিবিদের মোট সম্পত্তি দাঁড়িয়েছে ৭৪ দশমিক ৪ বিলিয়ন মার্কিন ডলার।

গত কয়েক মাস ধরেই বড় ধরনের পরিবর্তনের পরিকল্পনা সাজাচ্ছিল ফেসবুক কর্তৃপক্ষ। ব্যবহারকারীরা বহুদিন ধরেই অভিযোগ করে আসছিলেন, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, ব্র্যান্ড ও সংবাদমাধ্যমের পোস্টের ভিড়ে মানুষের ব্যক্তিগত মুহূর্তগুলো উপেক্ষিত হচ্ছে। এ অভিযোগটির ভিত্তিতেই নিউজফিডে পরিবর্তন আনার উদ্যোগ নেয় দুইশ’ কোটি ব্যবহারকারীর এই সোশ্যাল নেটওয়ার্ক।

খুব শিগগিরই ব্যবহারকারীরা নিউজফিডে পরিবর্তন দেখতে পাবেন বলে শুক্রবারের পোস্টে ঘোষণা করেন জুকারবার্গ। এমনকি পরিবর্তনটা সপ্তাহখানেকের মধ্যে দেখা যেতে পারে বলেও জানান তিনি।

বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, সংবাদমাধ্যম বা তারকা ব্যক্তিত্বের পোস্টের কারণে অনেক সময় ব্যবহারকারী তার নিকটজনেরই তৎপরতা দেখতে পান না নিউজফিডে। অথচ ফেসবুক প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল ঘনিষ্ঠজনদের সঙ্গে পারস্পরিক মিথষ্ক্রিয়া বাড়ানোর জন্যই। তাই লক্ষ্য থেকে বিচ্যুত হতে থাকা ফেসবুককে মূলধারায় ফিরিয়ে আনতে কর্তৃপক্ষ এ উদ্যোগ নিয়েছে বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা।